Pure ghee (Homemade) - Pabna

As low as ৳325.00

সম্পূর্ণ ঘরোয়া পরিবেশে তৈরি  পাবনার বিখ্যাত ১০০% খাঁটি গাওয়া ঘি। আপনিও ঘরে বসে উপভোগ করতে পারেন পাবনার খাঁটি গাওয়া ঘি’র স্বাদ!

AvailabilityIn stock
SKU
PGHP

What is Ghee?

Ghee is clarified butter, a.k.a. butter that has been simmered and strained to remove all water. In France, clarified butter has uncooked milk solids, yielding a product with a very clean, sweet flavor. In comparison, ghee is cooked over low heat until the milk solids have a chance to start to brown lightly, creating a slightly nutty, caramelized vibe. It is shelf-stable, with a high smoke point and deeply nutty flavor. Ghee has played a key role in Ayurveda for centuries, where it's prized for its anti-inflammatory, digestive, and therapeutic properties. It even appears in the Vedic myth of creation, when the deity Prajapati created ghee from nothingness and poured it into the fire to form his offspring.

 

What makes ghee especially beneficial?

  • What makes ghee especially beneficial is how the process of heating and straining the milk solids actually removes almost all of the lactose, making it lactose-free.
  • This also preserves the butter, allowing tobe shelf-stable for long periods of time, an ancient technique practiced for thousands of years.
  •  

Benefits of Ghee vs butter:

  1. Easy to digest: Because all the milk solids are removed through heating, ghee is mostly lactose-free, making it more easily digestible than butter, for many people with lactose intolerance.
  2. Ghee has a higher smoke point than butter. At high temps, many oils break down into unstable elements known as free radicals, which are known to can cause cellular damage and linked to cancer. Ghee has a point of 485°F, so it retains its structural integrity under the high heat.
  3. Ghee soothes inflammation. It contains butyrate, a fatty acid that has been linked to an immune system response that soothes and calms inflammation.
  4. Ghee also has anti-viral properties. 
  5. Ghee can be used to treat burns
  6. Ghee contains vitamin E, one of the most powerful antioxidants found in food. Antioxidants seek out and neutralizing free radicals that can lead to disease.
  7. Ghee helps soothe the healthy digestive system by helping heal and repair the stomach lining. Because casein and whey proteins in butter, which sometimes cause sensitivities with people, are removed with the milk solids, and because of this, ghee is incredibly gentle on the gut, even to the point of being soothing and healing.
  8. Highly nutritious. Ghee contains high amounts of vitamins A, D, E and K.
  9. Ghee aids in the body’s absorption of fat-soluble vitamins.
  10. Ghee is all-natural. Nothing extra is added to ghee, and it’s not highly processed like may seed oils.

 

ঘরে তৈরি খাঁটি গাওয়া ঘি রেসিপি

গাওয়া ঘি অনেক পদ্ধতিতে তৈরি করা যায় আজ আমরা যে পদ্ধতিটি আলোচনা করব সেটা হল ঘরে ঘি তৈরি করার সবচেয়ে সহজ উপায়। তাহলে আসুন আমরা দেখে নেই কি ভাবে সহজে গাওয়া ঘি তৈরি করা যায়।

উপকরনঃ
১। দুধের সর- 1 কেজি
২।পরিমাণ মত ঠাণ্ডা পানি
৩।ঘি তৈরির জন্য যা লাগবে- মাটির পাত্র বা মালসা- ১টি সর ব্লেন্ড করার জন্য
৪।ব্লেন্ডার অথবা শিল-পাটা- (সর বাটার জন্য)
৫।কাঠের চামচ ১টি

 

ধাপে ধাপে গাওয়া ঘি তৈরি পদ্ধতিতি

১. প্রথমে দুধের সর অল্প অল্প করে খুব মিহি করে ব্লেন্ড করে অথবা পরিষ্কার শিল-পাটায় বেটে নিন।

২. এবার মাটির পাত্রে মিহি করে ব্লেন্ড করা/ বাটা সর থেকে অল্প অল্প করে নিয়ে কাঠের পরিষ্কার ডাল ঘুটনি দিয়ে যত দ্রুত সম্ভব ততো দ্রুত ঘুটতে থাকুন।

ঘুটতে ঘুটতে দেখবেন মিহি সর একসময় মাখন বা বাটার আলাদা হয়ে যাবে ( এই কাজটি ডিম ফ্যাটানোর মেশিন দিয়েও করতে পারেন তবে ঘুটনি দিয়েই করা ভাল।)

৩. বাটার আলাদা হয়ে গেলে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে আবার ব্লেন্ড বা ঘুঁটা দিলে পানি ও আলাদা হয়ে মাখন বা বাটার হয়ে যাবে।

৪. যখন মাখন সবটুকু পরিষ্কার হয়ে পানির উপরে উঠে আসবে তখন পানি থেকে মাখন ছেকে তুলে নিন এবং পানি আলাদা করে রেখ দিন। ( এই পানি কে বাটার মিল্ক বলা হয় যা স্বাদে গন্ধে অতুলনীয়, এই বাটার মিল্ক পরে রুটি, পিঠা ইত্যাদি অথবা অন্য কিছুতে দিলে অনেক মজা হয়। )

৫. এবার মাখনে থকে পানি পুরা পুরি বের করার জন্য মাখন একটি পাতলা মসলিন কাপড়ের বেধে ঝুলিয়ে ৪-৫ ঘণ্টা রেখে দিন।

৬. মাখনে থকে পানি পুরা পুরি বের হয়ে যাবে তখন একটি নতুন পরিষ্কার ও গন্ধ বিহীন লোহার কড়াইে মাখনগুলি অল্প আঁচে অনবরত নাড়তে থাকুন।

বেশ কিছুক্ষণ নাড়ার পরে মাখন থকে থেকে ঘি বের হতে থাকবে। এটাই হল সেই বিখ্যাত গাওয়া ঘি। তবে ঘি কিন্তু এখনও সম্পূর্ণরূপে ঘি তৈরি হয়নি।

সবটুকু মাখন যখন পুড়ে কালো হয়ে যাবে এবং ঘি গাড় হয়ে সুন্দর সোনালি রং ধারণ করবে ও সুন্দর সুগন্ধ ছড়াবে তখন বুঝতে হবে আসল ঘি তৈরি হয়ে গেছে।

৭. ঘি ঠাণ্ডা হয়ে গেলে ছেঁকে নিতে হবে যেন পোড়া অংশ ঘি-য়ের সাথে মিশে না যায়। তারপর শুকনা পাত্রে সংরক্ষণ করতে হবে। ব্যাস তিরী হয়ে গেল বিখ্যাত গাওয়া ঘি।

বিঃ দ্রঃ মাখন আলাদা করার জন্য মাটির পাত্রই ব্যাবহার করা ভাল । স্টিল বা অন্যান্য তৈজসপত্র ব্যাবহার করলে মাখন নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

 

 

Write Your Own Review
You're reviewing:Pure ghee (Homemade) - Pabna
Your Rating